শনিবার, ০২ মার্চ ২০২৪, ০৫:৫৪ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
খুলনায় পাঁচ দিনব্যাপী জাতীয় পিঠা উৎসবের উদ্বোধন স্ত্রী ও তিন সন্তানকে নিয়ে পাশাপাশি শায়িত হলেন মোবারক কে কোন মন্ত্রণালয় পেলেন নতুন প্রতিমন্ত্রীরা ঝিনাইদহ প্রেসক্লাবের দ্বি-বার্ষিক নির্বাচন সম্পন্ন সভাপতি রায়হান, সম্পাদক ফয়সাল যে কোন ধর্মীয় উৎসব সকলের মাঝে সম্প্রীতি বন্ধনের সৃষ্টি করে : ভূমিমন্ত্রী বাগেরহাটের রামপালে সাংবাদিক তুহিনের ব্যাবসা প্রতিষ্ঠানে দূর্ধর্ষ চুরি পাইকগাছায় জুয়ার সরঞ্জাম ও নগদ অর্থ সহ জুয়াড়ি আটক-৮ বেইলি রোডে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডে নারী-শিশুসহ এখন পর্যন্ত মৃতের সংখ্যা ৪৫ জন খুলনার বইমেলায় পৌনে ৫ কোটি টাকার বই বিক্রি কাচ্চি ভাই’‌তে ভয়াবহ আগুন, নিয়ন্ত্রণে ফায়ার সার্ভিসের ১১ ইউনিট

পরিবহন, বিপাকে ঘরমুখো দক্ষিণের যাত্রীরা

খুলনার কাগজ
  • আপডেট সময় : মঙ্গলবার, ২৭ জুন, ২০২৩

 

নিজস্ব প্রতিবেদক।।ঈদকে কেন্দ্র করে রাজধানীর প্রত্যেক স্টেশনে ঘরমুখো মানুষের চাপ বেড়েছে। সে কারণে যানবাহনেরও চাপ বেড়েছে সড়কে।

ঢাকা-মাওয়া মহাসড়কেও এমন চিত্র দেখা গেছে। এ রুট দিয়ে দক্ষিণবঙ্গের মানুষের যাতায়াত।

তবে যে পরিমাণ যাত্রী বেড়েছে সেই তুলনায় গাড়ি নেই।
খুলনা-বরিশাল-ফরিদপুর-গোপালগঞ্জের যাত্রীরা যানবাহন সংকটে পড়েছেন বিপাকে।

মঙ্গলবার (২৭ জুন) সরেজমিনে যাত্রাবাড়ী বাসস্ট্যান্ড ঘুরে দেখা যায় হাজারও যাত্রী বৃষ্টির মধ্যে দাঁড়িয়ে আছেন। কখন মিলবে বাসের টিকিট সেই অপেক্ষায়। যাত্রীদের মধ্যে রয়েছেন বিভিন্ন বয়সী নারী, পুরুষ ও ছোট বাচ্চা।

কথা হয় খুলনার যাত্রী মো. মনিরুল ইসলামের সঙ্গে, তিনি বলেন, সকাল থেকে এসে দাঁড়িয়ে আছি যাত্রাবাড়ী বাসস্ট্যান্ডে। কোনো গাড়িতে সিট পাচ্ছিনা। অগ্রিম টিকিটও কাটতে পারি নাই। এদিকে বৃষ্টিও হচ্ছে। এখন কীভাবে বাড়িতে যাব বুঝতে পারছি না।

অন্যদিকে মিরপুর-ফার্মগেট-বাড্ডা-গুলশান বিশ্বরোড় এলাকার যাত্রীদের সায়দাবাদ-যাত্রাবাড়ীতে আসতে দুই থেকে তিন ঘণ্টা সময় লাগছে। রাস্তায় গরু হাট বসায় সৃষ্টি হয়েছে তীব্র যানজট। এ যানজটের কারণেই এত সময় লাগছে।

সায়দাবাদ থেকে বরিশাল রুটের হানিফ পরিবহনের ম্যানেজার কুরবান আলী বুলু বলেন, আমরা এ রোডে অগ্রিম টিকিট বিক্রি করি নাই। রাস্তায় গরুর হাট বসানোর কারণে যানজট অনেক বেশি। কখন গাড়ি আসবে-যাবে তার ঠিক নেই। এজন্য গাড়ি হাতে পাওয়ার পরে আমরা টিকিট বিক্রি করছি।

তিনি বলেন, অগ্রিম টিকিট বিক্রি না করায় কাউন্টারের সামনে এবং সায়েদাবাদ ও যাত্রাবাড়ী এলাকাতে দক্ষিণবঙ্গের যাত্রীদের বেশ চাপ দেখা যাচ্ছে। তবে আশা করি রাতের মধ্যেই এ চাপ কমে যাবে।

Facebook Comments Box
এ জাতীয় আরও খবর
© All rights reserved © 2022 Khulnar Kagoj
ডিজাইন এন্ড ডেভেলপমেন্ট Shakil IT Park