সোমবার, ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৮:২৮ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
বটিয়াঘাটায় কৃষি ব্যাংক কর্তৃক গ্রাহক সেবা উন্নয়ন বিষয় মতবিনিময় সভা ইবাদত বন্দেগী আর ধর্মীয় ভাবগাম্ভীর্যের মধ্য দিয়ে পবিত্র শবে বরাত পালিত বাংলাদেশের বিচারকাজ পর্যবেক্ষণ করলেন ভারতের প্রধান বিচারপতি গর্ভের সন্তানের লিঙ্গ পরিচয় প্রকাশ করা যাবে না: হাইকোর্ট বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় এমপি হলেন ৫০ নারী, গেজেট মঙ্গলবার পাইকগাছায় ৫০০’গ্রাম গাঁজা সহ আটক-২ অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোঃ ফরহাদ সরদার রাষ্ট্রপতি পুলিশ পদক (পিপিএম) প্রাপ্তির জন্য নির্বাচিত খুলনায় ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডে চারটি দোকান ভস্মীভূত কুরআন ও দ্বীনি শিক্ষা শিক্ষার্থীদের ধর্মীয় মূল্যবোধের আদর্শ নাগরিক গড়ে তুলবে ; শেখ জুয়েল এমপি নগরীতে মোটরসাইকেলের ধাক্কায় যুবক নিহত

দাকোপে সীমানা পিলার-সহ একজনকে আটক

খুলনার কাগজ
  • আপডেট সময় : বুধবার, ১২ জুলাই, ২০২৩

 

আমিনুল হোসেন রনি (বাজুয়া প্রতিনিধি)।।খুলনার দাকোপ উপজেলার কৈলাশগঞ্জ ইউনিয়নের ধোপা দি মধ্যবিল থেকে দাকোপ, নামক স্থান থেকে রশিদ গাজী নামের এক ব্যক্তিকে দাকোপ থানা পুলিশ ম্যাগনেটিং পিলার সহ আটক করেছেন।

জানা যায়, গতকাল ১১ জুলাই বিকাল সাড়ে পাঁচটার দিকে দাকোপ থানা অফিসার ইনচার্জ উজ্জ্বল কুমার দত্তের নির্দেশনায় গোপন সংবাদের ভিত্তিতে দাকোপ থানার সাহসী পুলিশ অফিসার এস আই বিজয় কৃষ্ণ কর্মকার সঙ্গীয়ফোর্স নিয়ে অভিযানটি পরিচালনা করেন।

এ সময়ে সাহসিকতার সাথে অভিযানে অংশগ্রহণ করেন দাকোপ থানার অফিসার এ এস আই আজমীর হোসেনসহ কনস্টেবল হেলালুর রহমান রফিকুল ইসলাম ১৩৯৬, কং/
২২১৫ নাঈমুল হক ২১৩৭ ইসমাইল বিশ্বাস।

দাকোপ থানা পুলিশ সুত্রে জানা যায়, রশিদ গাজী আরো তিন আসামি যারা এখনও পর্যন্ত পলাতক রয়েছে, আকরাম,পিং জান্নাত, মাসুদ শেখ, পিং নুর আলী শেখ এবং নাসমিন খাতুন,স্বামী মাসুদ শেখ, উভয় সাং লাউডোব পশ্চিম পাড়া দাকোপ খুলনা।

এস আই বিজয় কৃষ্ণ কর্মকার সাংবাদিকদের জানান, আসামিগন নিষিদ্ধ প্রানী তক্ষক সাপ একটি বাড়িতে ক্রয়বিক্রয়ের উদ্দেশ্যে অবস্থান করাছিলেন।এমন মহূর্তে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে আমিসহ দাকোপ থানা পুলিশ উপস্থিত হয়।

উক্ত তিন আসামি পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে দস্তাদস্তি করে দ্রুত পালিয়ে যায়।

পরবর্তীতে ১নং আসামিকে দাকোপ থানা পুলিশ আটক করেন। এবং তার ডান হাতে থাকা প্লাস্টিকের বাজার করা ব্যাগের ভিতর তল্লাশি করে একটি নিষিদ্ধ তক্ষক সাপ, ১ টি বাটন মোবাইল ফোন, ১ টি টাচ ফোন আসামির কাছ থেকে উদ্ধার করা হয়।

উক্ত আসামিকে দাকোপ থানা পুলিশ বন্যপ্রানী সংরক্ষণ নিরাপত্তা আইনে মামলা রজু পূর্বকে উক্ত আসামিকে বিজ্ঞ আদালতে প্রেরন করা হয়। এবং অপর তিন আসামিকে একই অপরাধে দোষী সাব্যস্ত করে মামলা রজু হয়।

Facebook Comments Box
এ জাতীয় আরও খবর
© All rights reserved © 2022 Khulnar Kagoj
ডিজাইন এন্ড ডেভেলপমেন্ট Shakil IT Park