সোমবার, ০৪ মার্চ ২০২৪, ১২:১৫ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
রূপসায় বিদ্যুৎ স্পষ্টে একজনের মৃত্যু খালিশপুর থানা পুলিশের অভিযানে ১ টি ল্যাপটপ ও ক্যামেরা সহ চোর চক্রের সদস্য গ্রেফতার খেলা ধুলা শিক্ষার্থীদের মন ও শরীর দুটোই ভালো রাখে-ভূমিমন্ত্রী বাড়লো এলপিজির দাম অবৈধ ক্লিনিক-ডায়াগনস্টিকে অভিযান জোরদার হবে : স্বাস্থ্যমন্ত্রী খুলনায় ভূমিদস্যু ও চাঁদাবাজের বিরুদ্ধে সংবাদ প্রকাশ করায় মিথ্যা মানববন্ধন ও গায়েবী মামলার হুমকি রামপালে পুলিশের অভিযানে নারী মাদক কারবারি আটক খুলনার পাইকগাছায় বিশ্ব বন্যপ্রাণী দিবস পালিত বাগেরহাটের রামপালে বর্ণাঢ্য আয়োজনে জাতীয় ভোটার দিবস পালন খেলা ধুলা শিক্ষার্থীদের মন ও শরীর দুটোই ভালো রাখে-ভূমিমন্ত্রী

আড়ংঘাটা ৭নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য কর্তৃক মহিলা শ্রমিককে মেরে রক্তাক্ত করার অভিযোগ

খুলনার কাগজ
  • আপডেট সময় : বৃহস্পতিবার, ১৩ এপ্রিল, ২০২৩

 

ক্রাইম রিপোর্টার।।দিঘলিয়া উপজেলার ৫ নং আড়ংঘাটা ইউনিয়ন পরিষদের ৭ নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য রেজাউল শেখের বিরুদ্ধে ৪০ দিনের কর্মসূচির কাজের শ্রমিকের পাওনা টাকা চাইতে গেলে পারুল বেগম নামে এক মহিলা শ্রমিককে মেরে রক্তাক্ত জখম করার অভিযোগ উঠেছে।

 

ঘটনা সূত্রে জানা যায় বুধবার ১২ এপ্রিল সকাল ৯ টায় আড়ংঘাটা ইউনিয়ন পরিষদের ৭নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য রেজাউল শেখের বাড়িতে ৪০ দিনের কর্মসূচির কাজের শ্রমিক পারুল বেগম কাজের পাওনা ৮ হাজার টাকা চাইতে গেলে ইউপি সদস্য তাকে টাকা না দিয়ে তার গায়ে লাঠি এবং কিল ঘুষি মেরে রক্তাক্ত জখম করে।এ সময় তিনি ইউনিয়ন পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান-১ মোঃ সোহেল সরদার ও সাবেক চেয়ারম্যান ও ৩২ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি মফিজুর রহমান জিবলু মোড়লের কাছে বিচারের দাবি জানান।তখন তারা মৌখিক ভাবে দিঘলিয়া উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কাছে ফোনে বিষয়টি জানান এবং রক্তাক্ত অবস্থায় মহিলাকে আড়ংঘাটা থানায় প্রেরণ করেন।পারুল বেগম এই প্রতিবেদকে জানান, আমি ৭ নং ওয়ার্ডের ঝাওতলায় বসবাস করি। ৭নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য রেজাউল শেখের ওয়ার্ডে ৪০ দিনের কর্মসূচিতে ৪৬ দিন শ্রমিক হিসেবে কাজ করেছি। আমার পাওনা টাকা ১৬ হাজার,৬ দিনের টাকা সে দিবে না বলেছে। ৮ হাজার টাকা দিয়েছে এবং বাকি আট হাজার টাকা তার মোবাইল নাম্বারে নিয়ে গেছে।সেই টাকা চাইতে গেলে সে বলে আমি তোর টাকা নেইনি তুই কিসের জন্য আমার বাড়িতে এসেছিস। এই বলে সে আমাকে গালিগালাজ করে ও লাঠি এবং হাত দিয়ে কিল ঘুষি মেরে আমাকে রক্তাক্ত জখম করেছে।আমি রেজাউল শেখের বিচার চাই।

 

এ বিষয়ে আড়ংঘাটা ইউনিয়ন পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান-১ মোঃ সোহেল সর্দার জানান ৪০ দিনের কর্মসূচি এই শ্রমিক মহিলা পারুল বেগমকে তিনি মেরেছেন তার টাকা জালিয়াতি করে মোবাইল ফোনে নিয়ে সেই টাকা না দেওয়া সে অপরাধ করেছেন। এই বিষয়ে আমরা এই মহিলাকে সার্বিক সহযোগিতা করব এবং দিঘলিয়া উপজেলা নির্বাহী অফিসারের সাথে বিষয়টি নিয়ে কথা বলে তার ব্যাপারে আমরা আইনি ব্যবস্থা নিব।এ বিষয়ে ৩২ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাবেক আড়ংঘাটা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মফিজুর রহমান জিবলু জানান, রেজাউল শেখ আমার ওয়ার্ডের আ’লীগের সাধারন সম্পাদক এই শ্রমিক মহিলাকে গায়ে হাত দিয়ে রক্তাক্ত জখম করেছে এটা তিনি আসলে অন্যায় করেছেন, আমরা এর নিন্দা জানাই তার এ বিষয়ে তিনি আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করলে আমি তাকে সহযোগিতা করব।আড়ংঘাটা থানা সুত্রে জানা যায়,এবিষয়ে থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের হয়েছে।

Facebook Comments Box
এ জাতীয় আরও খবর
© All rights reserved © 2022 Khulnar Kagoj
ডিজাইন এন্ড ডেভেলপমেন্ট Shakil IT Park